"প্যাশন" শব্দটাকে, প্লিজ, আর পঁচাবেন না - উদ্যেক্তা বন্ধু - Ali Bhai

Passion
Passion 

"প্যাশন" শব্দটাকে, প্লিজ, আর পঁচাবেন না

"প্যাশন" শব্দটা শুনতে শুনতে আমার কান একেবারে পচে গেছে। যখননি কাউকে প্রশ্ন করি, "তুমি কেন উদ্যোক্তা হতে চাও?" সে আমার প্রশ্ন শেষ করবার আগেই উত্তর দিয়ে বসে, "কারণ আমি "x"-এর প্রতি প্যাশনেট, "y"-এর প্রতি প্যাশনেট, "z"-এর প্রতি প্যাশনেট।

দেখুন, অনেক চাকরির বিজ্ঞাপনে ৩.০ সিজিপিএ যেমন এপলাই করবার জন্য "মিনিমাম রিকুইরেমেন্ট রিকোয়ারর্মেন্ট" হিসাবে থাকে, ঠিক তেমনি স্টার্টআপ ফাউন্ডারদের জন্য "প্যাশন" একটি মিনিমাম রিকোয়ারর্মেন্ট মাত্র। আরো একটি ব্যাপার আছে, কাউকে দুঃখ দেবার জন্য বলছি না, ইন্টারভিউ বোর্ডে যেমন সব উনিভার্সিটির সিজিপিএকে একভাবে দেখা হয় না, ঠিক তেমনই, সব ধরণের প্যাশনেট লোককে এক ভাবে দেখা হয় না।

আমার অভিজ্ঞতা অনুযায়ী, "প্যাশনেট লোকেরা" তিন ধরণের হয়ে থাকে। প্রথম হচ্ছে "লেজি বা অলস প্যাশনেট মানুষ," দৃতীয় হচ্ছে "ড্রিমি বা স্বপ্নে-বিভোর প্যাশনেট মানুষ" আর সব শেষে হচ্ছে "রিয়ালিস্টিক বা বাস্তববাদী প্যাশনেট লোক।"

আমাদের সবার পরিচিত, লেজি প্যাশনেট লোকরা কোন একটি ব্যাপার নিয়ে প্যাশনেট থাকে ঠিকই কিন্তু ওই পার্টিকুলার জিনিসটার উপর এক্সপার্ট হবার জন্য যতটুকু পরিশ্রম করা দরকার, তারা তা ভুলেও কখনো করে না। এই ধরণের লোকদেরকে দিয়ে আর যা কিছু হোক না কেন স্টার্টআপ শুরু হবে না।

দৃতীয় টাইপের প্যাশনেট লোক হচ্ছে, "ড্রিমি প্যাশনেট।" এই ধরণের লোকগুলো একটু পাগল প্রকৃতির হয় এবং এদের পক্ষেই প্যারাডাইম শিফট আনা সম্ভব, নেক্সট ফেইসবুক, গুগল, মাইক্রোসফট শুরু করা সম্ভব। কিন্তু, এই ধরণের উদ্যোক্তাদের একটা বড় উইকনেস আছে। স্টার্টআপ শুরু করবার প্রথম দিকে এদের কনভেনশনাল বিসনেস ম্যানেজমেন্ট স্কিলের ঘাটতি থাকে এবং তাই তাদের দরকার পড়ে এমন একজন কো-ফাউন্ডারের বা মেন্টরের যে বিসনেস অপারেশন্স-এর ব্যাপারে ভালো জ্ঞান রাখে।
গুগলের শুরুর দিকে গুগলের বোর্ড মেম্বাররা গুগলের কো-ফাউন্ডার, ল্যারি পেজকে বাধ্য করেছিল প্রফেশনাল CEO হায়ার করবার জন্য। আর ফেসবুকের আজকের এই পসিশনে পৌঁছবার পেছনে Sean Parker-এর কতটুকু কান্ট্রিবিউশন আছে তা তো সবাই জানে।

এখন শেষ টাইপের লোক হচ্ছে "বাস্তববাদী প্যাশনেট উদ্যোক্তা।" এই ধরণের উদ্যোক্তারা অনেকটা "চ্যাকা -খাওয়া" প্রেমিকদের মতো। প্রথম দিকে এরাও স্বপ্ন দেখতো, এরাও কবিতা লেখতো, কিন্তু কয়েকবার ব্যবসায় ফেল করবার পর এখন তারা পানি খেলেও তা দোয়া পড়ে ফু দিয়ে তারপর খায়।

অনেকবার ফেল করবার এক্সপেরিয়েন্স আর সফল উদ্যোক্তা হবার জিদ, "রিয়ালিস্টিক প্যাশনেট" উদ্যোক্তাদের, এফেক্টিভ ম্যানেজার হিসাবে তৈরী করে। যদি কোনো ভাবে একজন রিয়েলিস্টিক কো-ফাউন্ডার একজন ড্রিমি প্যাশনেট কো-ফাউন্ডার পেয়ে যায় তাহলে তারা তুলকালামকান্ড করে দিবে।

ফেসবুকের Sean Parker একজন বাস্তববাদী প্যাশনেট উদ্যোক্তা, আমেরিকার Walmart-এর ফাউন্ডার স্যাম ওয়াল্টন একজন রিয়ালিস্টিক প্যাশনেট উদ্যোক্তা। তো, উদ্যোক্তা-বন্ধুরা, বুঝতেই পারছেন, শুধু প্যাশনেট হলেই চলবে না, ড্রিমি বা রিয়ালিস্টিক প্যাশনেট হতে হবে। আর ড্রিমি প্যাশনেট হলে রিয়ালিস্টিক-প্যাশনেট একজন কো-ফাউন্ডার বের করতে হবে। আর রিয়ালিস্টিক প্যাশনেট হলে একজন ড্রিমি প্যাশনেট কো-ফাউন্ডার বের করতে হবে।

Post a Comment

0 Comments